ষড়ভুজ নাট্য উৎসবে মঞ্চস্থ হলো বাংলাদেশ কথাসুন্দরের অসাধারণ নাটক ” খেলাঘর ” ও ষড়ভুজের শিল্পীদের নাটকের গান

0
67




নিজস্ব প্রতিনিধি:ষড়ভুজ নাট্য উৎসবে গত ২১ জুন ২০২২ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় উত্তর কলকাতার গিরিশ মঞ্চে এই প্রথম মঞ্চস্থ হলো বাংলাদেশ চট্টগ্রামের কথা সুন্দর নাট্য দলের নাটক ” খেলা ঘর “।
হেনরিক ইবসেন এর A Dolls House অবলম্বনে নাটক
“খেলা ঘর”। নাটক শঙ্কর বসু ঠাকুর। সম্পাদনা, মঞ্চ ও নির্দেশনা কুন্তল বড়ুয়া।
নাটকটির কাহিনী এরকম- সীমা ও বিকাশ এই দম্পতির দের সুখের সংসার।বিকাশ ব্যাংকের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা। একদিন হঠাৎ বিকাশের দূর সম্পর্কের বোন রঞ্জনা বাড়িতে আসে একটা চাকরির প্রয়োজনে।এরমধ্যে বিকাশ হৃদরোগে আক্রান্ত হয়। চিকিৎসার খরচ জোগাড় করার জন্য সীমা সাহায্য চাইতে যায় রঞ্জনার স্বামী কমলের কাছে। কমল বিকাশের অফিসের নিচু তলার কর্মী। কমলের কু পরামর্শে অসুস্থ বাবার সই জাল করে টাকা নেয় সীমা। এর পর নানা ভাবে কমল ব্ল্যাক মেল করতে থাকে সীমাকে। বিকাশ সব জানতে পেরে সীমা কে ভুল বোঝে। কিন্তু এত কিছু করেছে মানবিক কারণে বিকাশ কে সুস্থ করার জন্য। এই পুরুষ শাসিত সমাজে সে বিকাশ ও কমলের কাছে খারাপ হয়ে যায়। কিন্তু বিকাশ কি সীমার কাছে ফিরতে পারবে বা সীমা এই সমাজের বুকে আবার মাথা তুলে দাঁড়াতে পারবে…
এই নিয়েই টান টান উত্তেজনা য় জমে উঠেছিলো দু ঘন্টার নাটক “খেলা ঘর”।
মঞ্চে বিভিন্ন চরিত্রে চমৎকার অভিনয় করেছেন সীমা চৌধুরী (জান্নাতুন নাইম মুক্তা), বিকাশ চৌধুরী (ইউনুস রানা, কমল সরকার (হিমাদ্রি শেখর রায়), রঞ্জনা (সানজিদা আমিন), ছটু (আহাদনুর ফকির), ড: রায় (শাশ্বত দত্ত শুভ)। এই নাটকের আলো ও আবহ সংগীত করেছেন সুদীপ সান্যাল ও দেবাশীষ রায়। পরিচালক কুন্তল বড়ুয়ার অসাধারণ মঞ্চ নির্মাণ দেখার মতন। নৃত্য পরিকল্পনা ও পোশাকে নজর করেছেন প্রমা অবন্তী। সকল দর্শকদের নজর কারে কুন্তল বড়ুয়া সম্পাদিত ও নির্দেশিত এই নাটক খেলা ঘর। এই নাটকের পর পরিবেশিত হয় ষড়ভুজের শিল্পীদের নাটকের গান।পরিবেশন করেন অনির্বান সরকার, অভিনন্দন সিনহা, রোহন পাত্র, সোহম দাস, সুদীপ্ত মন্ডল, দিশা মিদ‍্যা, মুশফিক আকনদ, সুচন্দা সাহা, অনামিকা চ্যাটার্জী, রিমিল সেন, মৈত্রি চক্রবর্তী।বাদ‍্য যন্ত্রে ছিলেন (বাঁশি) শোভন দেব মন্ডল, অমিত সরকার (ব‍্যানজো), প্রীতম গুহ(পারকাশন)। প্রশিক্ষনে ছিলো অনির্বান সরকার ও অভিনন্দন সিনহা। সামগ্রিক ভাবনা, পরিকল্পনা ও পরিচালনায় ছিলেন ড তরুণ প্রধান ও সুরজিৎ সরকার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here