“যেটা হতে চলেছে সেটার একটা ভালো দিক আছে অবশ্যই”:কিয়া দেবদাস

0
262
‘আমি যাযাবর’ ছবির দৃশ্যে কিয়া দেবদাস ও পাপিয়া অধিকারী

কভিড-১৯ আমাদের ব্যক্তিগত স্বাধীনতা কেরে নিয়েছে তাই পরিস্থিতি শিখিয়েছে পরিবর্তনশীল জগতে রূপ রং মেলে নিজেদের ধরা। আমাদের চলার পথে খারাপ পরিস্থিতি আসতেই পারে তার জন্য থেমে থাকলেই হবে না। আমাদের এগিয়ে যেতে হবে। আমি যাযাবর ছবিটি মার্চের ২৭ তারিখে মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল কিন্তু সিনেমা হল গুলো লোকডাউনের জন্য বন্ধ থাকতে আমাদের অনেকটাই পিছিয়ে যেতে হলো , শ্রী সুরেস্বরী ফিল্মস এর প্রযোজনায় বহু প্রতীক্ষিত বাংলা ছবি “আমি যাযাবর ” ওটিটি প্লাটফর্ম জমেযাক টিভি তে মুক্তি পেতে চলেছে তাছাড়া আমাজন প্রাইম এর সঙ্গে কথা বার্তা চলছে। এখন শুধুই অপেক্ষা, আর সিনেমা হল গুলো যদিও খোলে কটা দর্শক সিনেমা হলে যাবে সেটাও ভাবার বিষয় আছে। সিনেমা হল নিয়ে বসে থাকলে অনেকটা পিছিয়ে পড়বো। যে ভাবে শুটিংয়ের শর্ত দেওয়া হচ্ছে তাতে কতটা এগোনো যাবে সেটাও বলা বাহুল্য। অনেকের কাছে শুনতে পাচ্ছি ওটিটি প্লাটফর্ময়ের ভবিষ্যৎ কি? আবার কেও কেও ওটিটি প্লাটফর্ম কে মেনে নিতে পারছেনা কারণ যাদের ছবি সিনেমা হলে রিলিজ হয়ে এসেছে এতো বছর ধরে সত্যি তো মেনে নেয়া যায়না তবে আমি বলবো ঘরে বসে পরিবার নিয়ে ওটিটি তে ছবি দেখার মজাটাই আলাদা। আমি এই ১০ বছরে অনেক কিছুই দেখলাম আরো কিছু হয়তো দেখতে হবে, অনেক ডিস্ট্রিবিউটর, এবং হল মালিকদের সঙ্গে কথা হয়েছিল আমার, তখন তাদের মুখ থেকে শুনতে হয়েছিল স্টার কাস্ট ছাড়া ছবি চালাতে পারবেনা। এখন তো সিনেমা হল গুলো সবই প্রায় বন্ধের মুখে। তবে আমার জন্য ওটিটি প্লাটফর্ম ঠিকই আছে, এখানে ওয়ার্ল্ড ওয়াইডে ছবি দেখতে পায় দর্শক,এটা একটা বড়ো সুবিধে আছে। এখন দেখুন যারা সুপারস্টার তারাই ওটিটি প্লাটফর্মে ডাইরেক্ট রিলিজ করছে ছবি গুলো। তবে যেটা হতে চলেছে সেটার একটা ভালো দিক আছে অবশ্যই।

                কিয়া দেবদাস
   (অভিনেত্রী ও প্রযোজক)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here