বিখ্যাত নাটক ‘টাকার রং কালো’ এবার পর্দায়

0
15

টিম ‘টাকার রং কালো’

নিজস্ব প্রতিনিধি:১৯৭০ দশকের বিখ্যাত নাটক ‘টাকার রং কালো’ অবলম্বনে মজার ছবি বানাচ্ছেন পরিচালক কল্যাণ সরকার এবং পার্থ চক্রবর্তী। নাটকটি প্রখ্যাত সাহিত্যিক সুনীল চক্রবর্তীর লেখা। নাটকটি বহুবার বহু মঞ্চে মঞ্চস্থ হয়েছে। এবার তা আসতে চলেছে বড় পর্দায়।

তনিমা সেন ও রাত্রি ঘটক

গল্পের কেন্দ্রীয় চরিত্র পশুপতি সমাদ্দার একজন সফল ব্যবসায়ী বলা ভালো অসাধু ব্যবসায়ী। তার অসৎ উপায়ে টাকা রোজগার নিয়েই যত কাণ্ড ঘটে তার পরিবারে এবং পরিবারের বাইরে৷ পশুপতি বাবু মনে করেন টাকা সৎ উপায়ে আসুক বা অসৎ উপায়ে সেটা তো টাকাই,টাকার গায়ে তো সাদা কালো কিছু থাকে না।

লাভলি

আর তাকে অসৎ উপায়ে টাকা রোজগারের পরামর্শ দেয় তার ম্যানেজার নন্দন সামন্ত এবং পিএ ঋত্বিকা সেনগুপ্ত এবং কেমিস্ট দোল গোবিন্দ। পশুপতির স্ত্রী আমোদিনী দেবী গয়না প্রিয় মহিলা। সারাদিন গয়নাগাটি পরে সে বসে থাকে। নিজের সই টুকুও সে করতে পারে না।

তনিমা সেন

সে বাবার কাছ থেকেই অনেক গয়নাগাটি নিয়ে এসেছে বিয়ের সময়। পশুপতি ও আমোদিনীর নিজেদের কোনও সন্তান নেই। তাই ভাগ্নে জ্যোতির্ময়কে দত্তক নিয়ে তাকে মানুষ করেছে তারা। জ্যোতির্ময় রোজগারের সব টাকা কাজে লাগায় সমাজসেবায়। সমাজ সেবা সমিতির কাণ্ডারি অভিমন্যু৷ ওদিকে কুহেলি নামের একটি মেয়ের সঙ্গে জ্যোতির্ময়ের দীর্ঘদিনের সম্পর্ক। আবার এই জ্যোতির্ময়কে বিয়ে করে ধনী হতে চায় পশুপতির পিএ ঋত্বিকা।

অমিতাভ ভট্টাচার্য

জ্যোতির্ময়ের এক মামাতো বোন লতিকা যাকে সবাই লতু বলে।সেও পশুপতির টাকা হাসিল করার যজ্ঞে নেমেছে। তাই সে নানারকমের বুদ্ধি পাকায়। আমোদিনীকে সে বলে ব্যাঙ্কে মেয়েদের নামে আর টাকা রাখা যাবে না৷তার জন্য অপেক্ষা করতে হবে ছবি মুক্তি পর্যন্ত।

বিভিন্ন চরিত্রে রয়েছেন বিশ্বজিৎ চক্রবর্তী (পশুপতি), তনিমা সেন (আমোদিনী), রাত্রি ঘটক (ঋত্বিকা), অমিতাভ ভট্টাচার্য (জ্যোতির্ময়), লাভলি (লতিকা)। এ ছাড়াও অভিনয় করছেন সুনিতা মণ্ডল, দেবাশিস গাঙ্গুলি, রাজু মজুমদার, অমিত মিশ্র, পার্থ চক্রবর্তী, কল্যাণ সরকার, গোবিন্দ রাজ পণ্ডিত সহ আরও অনেকে। সঙ্গীত পরিচালনায় অশোক ভদ্র। ক্যামেরায় স্বজন বিশ্বাস।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here